পুরাতন মোবাইল ফাস্ট করার সহজ উপায়

পুরাতন মোবাইল ফাস্ট করার সহজ উপায়

একটি নতুন ফোন কেনার সময় অনেক ফাস্ট থাকে। তবে সেই ফোনটি কয়েক মাস ব্যবহার করার পর তা আর আগের মতো ফাস্ট থাকে না। কি কারণে আমাদের ফোনটি ফাস্ট থাকে না? তো আজকে এমন পাঁচটি উপায় শেয়ার করব যার মাধ্যমে আপনার পুরাতন স্লো মোবাইলটিকে আগের মতো ফাস্ট করতে পারবেন।

পুরাতন মোবাইল ফাস্ট করার সহজ উপায়

পুরনো মোবাইল ফাস্ট করার ৫টি উপায়

অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ ইনস্টল

আমরা অনেক সময় প্লেস্টোর থেকে বিভিন্ন প্রকারের অ্যাপ ইনস্টল করে থাকি। তবে কাজ শেষ হবার পর সেই অ্যাপটি আনইনস্টল করতে ভুলে যাই এবং আমাদের ফোনে রেখে দেই  । এতে করে আমাদের ফোনটি স্লো হয়ে যায়। অনেক অ্যাপ আছে যা আমাদের ফোনের জন্য অতি প্রয়োজনীয়। সেই সব অ্যাপ গুলো আমাদের ফোনে ইনস্টল করে রাখতেই হবে। যেমন: SHARE it, Facebook, Imo, Video Player ইত্যাদি। তবে যে অ্যাপ গুলো অপ্রয়োজনীয় সে সকল অ্যাপ আমরা আনইনস্টল করে দিব। এতে করে ফোন আগের থেকে অনেক ভালো কাজ করবে। ফোনে বেশি অ্যাপ রাখলে ফোন হ্যাং করে।

Shortage Full

আমরা অনেকে ফোনের স্টোরেজ বিভিন্ন গান, মুভি ইত্যাদি দিয়ে পূর্ণ করে রাখি। ফোনের স্টোরেজ ফুল থাকলে ফোন স্লো কাজ করবে এটাই স্বাভাবিক। যখন আপনি নতুন ফোন কিনেন তখন আপনার ফোনের স্টোরেজ খালি থাকে তাই এত ফাস্ট কাজ করে। তো সর্বদা চেষ্টা করবেন মুভি, গান, নাটক ইত্যাদি আপনার SD কার্ডে রাখার জন্য এবং আপনার স্টোরেজ খালি রাখার।

অতিরিক্ত File

আপনি গুগল প্লেস্টোরের কোনো অ্যাপ ইনস্টল করে কাজ শেষে আনইনস্টল করে দিলেও তার ফাইল টি আপনার ফোনে থেকে যায়। এতে করে আপনার স্টোরেজ আস্তে আস্তে ফুল হতে থাকে। তাই এইসব ফাইল ডিলেট করার জন্য গুগল প্লেস্টোর থেকে File Go অ্যাপটি ইনস্টল করতে পারেন। File Go অ্যাপটি গুগলের অ্যাপ। তাই নিঃসন্দেহে ব্যবহার করতে পারেন।

Virus

অনেক সময় আমরা বিভিন্ন অ্যাপ গুগল প্লেস্টোর থেকে ইনস্টল না করে বিভিন্ন সাইট থেকে ইনস্টল করি। এর ফলে সেই অ্যাপটিতে ভাইরাস থাকতে পারে। যা আপনার ফোনটি কে আস্তে আস্তে হ্যাং করে দিবে এবং এক সময় আপনার ফোনটি নষ্ট হবারও সম্ভাবনা থাকে। তাই কোনো সাইট থেকে অ্যাপ ইনস্টল করার আগে সেটিতে ভাইরাস আছে কি না তা ভালো করে পর্যবেক্ষণ করে নিন। ভাইরাস থাকলে কোন ভাবেই ইনস্টল দিবেন না।

Auto Update

আমরা কোনো  অ্যাপ প্লেস্টোর থেকে ইনস্টল করার কিছু দিন পর পর অ্যাপটি আপডেট নেয়। আপডেট নেওয়ার ফলে অ্যাপটির সাইজ বড় হয়ে যায়। তার ফলে আমাদের স্টোরেজও আস্তে আস্তে ফুল হতে শুরু করে। তাই আমাদের ফোনটিকে আগের মতো ফাস্ট করার জন্য Auto Update অফ করে রাখতে হবে। তা না হলে প্রতিটি অ্যাপই কিছুদিন পর পর আপডেট চাইবে। অটো আপডেট অফ করার জন্য গুগল প্লেস্টোরের সেটিংস-এ গিয়ে auto update অপশনে ক্লিক করে অটো আপডেট অফ করে রাখলেই হবে। আর শুধু মাত্র একান্ত প্রয়োজনীয় অ্যাপগুলোই আপডেট করবেন।

আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে,  আপনার ফোনের ব্যাটারিতে সমস্যা থাকলে আপনার ফোন হ্যাং করবে। ব্যাটারি ফুলে গেলে বা চার্জিংয়ে সমস্যা হলে ব্যাটারি পরিবর্তন করে নতুন ব্যাটারি ব্যবহার করবেন। এতে করে আপনার ফোন আর হ্যাং করবে না।

আপনার পুরনো ফোনটিকে আগের মতো ফাস্ট করার জন্য এই পাঁচটি বিষয় অবলম্ব করতে পারেন।

বন্ধুরা, আর্টিকেলটি ভালো লাগলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন। কোন মতামত থাকলে কমেন্ট করে জানাবেন।

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url